Saturday, July 30, 2011

অনিকেত প্রান্তর - আর্টসেল


তবু এই দেয়ালের শরীরে
যত ছেড়া রং ধুয়ে যাওয়া মানুষ
পেশাদার প্রতিহিংসা তোমার চেতনার
যত উদ্ভাসিত আলোর রং
আকাশের মত অকস্মাৎ
নীল নীলে ডুবে থাকা তোমার প্রিয় কোন মুখ
তার চোখের কাছাকাছি এসে কেনো পথ ভেঙ্গে...


দুটো মানচিত্র একে দুটো দেশের মাঝে
বিধে আছে অনুভূতিগুলোর ব্যবচ্ছেদ

তবু এইখানে আছে অবলীল হাওয়া
জানালা বদ্ধ ঘরে আসে যায়
দেয়াল ধরে বেড়ে উঠে মধ্যরাত
তোমার ছায়ায় জমে এসে ভয়
আলোকে চিনে নেয় আমার অবাধ্য সাহস
ভিতরে এখনকি নেই কাপুরুষ অন্ধকার একা

তোমাকে ঘিরে পথ গুলো সব সরে যায়
রাত্রির এই একা ঘর ঝুলে আছে শুন্যের কাঁটাতারে
দুটো মানচিত্র একে দুটো দেশের মাঝে
বিধে আছে অনুভূতিগুলোর ব্যবচ্ছেদ

তবু এই দুটি কাঁটাতারে, শহরের মত করে
ভীরে ভরে গেছে ঘুম আমার
অচেতন কখন বেওয়ারিশ মাটির কাছে এসে
সময়কে এপিটাফ ভেবে হাটু গেড়ে বসে

তবু এখানে বাতাস আসে দুরত্বের উৎসাহে
শরৎ জমে আছে ঠান্ডা ঘাসে
তোমার চোখের মাঝে দুরের একা পথ
এখানে ভাঙ্গেনা দুটো দেশে

মেঘের দুরপথ ভেঙ্গে বুকের গভীর অন্ধকারে
আলোর নির্বাসন স্মৃতির মতন
অবিকল স্বপ্ন ঘরবাধা স্মৃতির অন্ধ নির্জনে
সময় থেমে থাকে অনাগত
যুদ্ধের বিপরীতে

এখানে স্মরনীর লেখা নেই নাম কোর শহীদ সড়কে
তোমার জন্য জমা থাকে শুধু স্বপ্নঘর
জানালায় ঝুলে থাকেনা শুন্যতার অবচেতন
তোমার ঘরে অন্ধ আলোয় অদেখা
এখানেই নির্জন অনিকেত প্রান্তর....

তবু তোমার ভাঙ্গা স্মৃতি ছেড়া স্বপ্ন দুমড়ানো খেলাঘর
ছেড়া আকাশ ভাঙ্গা কাঁচে
আলো আর অন্ধকার তোমার
তোমার দেয়ালে কত লেখা মানুষের দেয়ালে দেয়াল
বেড়ে উঠে কাঁটাতার এখানে মহান মানচিত্রের ভাগাড়

তোমার শুন্য ঘরে ভরা স্মৃতি
জড়পাথরে লেখা নাম শহীদ স্মরনী
জানালার বাইরে ভেসে গেছে দুরের আকাশ
বিধে আছে সময়রের কাঁটাতারে
বিধে আছ ছেঁড়া আকাশের মত তুমি

তোমার স্বপ্নের দোলা পাকানো
বাসি কবিতা নষ্ট গানে
তোমার জানালার বাইরে শুন্য আকাশ
তবু এই অনিকেত প্রান্তরে
এখানে এখনো শরতের প্রচুর বাতাসে
সবুজ এর ঘ্রানে
ভরে আছে অন্ধকার এ ঘর তোমার
দেয়ালে এখন শুধু মৃত্যুর মৃত রেখাপাত

তোমাকে কড়া নাড়ে স্মৃতিরা ভাঙগা স্বপ্ন
ঘুমের মত নেশাময় কত
কত শিশু কত আলোর মশাল নিভে গেছে
নিভে গেছে কত অচেনা ভয়
তোমাকে এখন অপরিনত এক অচেনা স্মৃতি মনে হয়
তোমার জানালার বাইরে শুন্যে
দুরের স্বপ্নঘর ঝুলে আছি
নির্জনতায় মৃত্যু কি অনিকেত প্রান্তর???????

No comments:

Post a Comment